বৃহস্পতিবার, ১৩ মে ২০২১ ইং, বাংলা ২৯, বৈশাখ ১৪২৮
  • ঢাকা টাইমস নিউজ ডেস্ক
  • ১৫৯১৩৭০৭৫৭

রাশিয়ায় নদীর পানি হঠাৎ করেই রক্তবর্ণ

রাশিয়ায় নদীর পানি হঠাৎ করেই রক্তবর্ণ

রাশিয়ায় নরস্লিক নামে শহরের পাশ দিয়ে বয়ে যাওয়া দুই নদী লাল হয়ে গেছে। রাশিয়ার এই দুই নদীর ছবি হঠাৎ আতঙ্ক ছড়িয়েছে বিশ্বজুড়ে। কেন এই নদী হঠাৎ লাল হয়ে গেল?‌ কী’ এমন ঘটেছে?‌ খবর পাওয়া গেছে ২১ হাজার টন ডিজে’ল রাশিয়ার এই অংশের একটি স্থানীয় পাওয়ার প্ল্যান্ট থেকে ছড়িয়ে পড়েছে নদীতে।

রাশিয়ায় নদীর পানি হঠাৎ করেই রক্তবর্ণ রূপ ধারণ করায় মানুষের ভেতর আতঙ্কের সৃষ্টি হয়। দেশটির উত্তরাংশের শহর নরিলক্সে এমন পরিস্থিতির সৃষ্টি হয়েছে। পানির অবস্থা এতটাই খারাপ যে রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট ভ্লাদিমির পুতিন সুমেরু অঞ্চলে জরুরি অবস্থা পর্যন্ত ঘোষণা করেছেন।

ভারতীয় সংবাদ মাধ্যম জি নিউজের প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, নরিলক্সে একটি থার্মাল পাওয়ার স্টেশনে বিশালাকার একটি জ্বালানির ট্যাংকার ফেটে এমন ঘটনা ঘটেছে। রাশিয়ার উত্তরাংশের শহর নরিলক্স সুমেরু বৃত্তের ১৮০ মিটার ওপরে অবস্থিত। খনন কাজের সঙ্গে যুক্ত একটি সংস্থা ডিজেল রেখেছিল বিরাট ট্যাংকে। সেই ট্যাংক আচমকা ফেটে বেশিরভাগ ডিজেল মিশে যায় নদীতে। তাই মিরশকি দলগ্যানোর জেলার একটি রিসার্ভারেও কিছুটা ডিজেল মিশে গেছে। আম্বার্নোয়া ও দাদিকান নদীতে মিশেছে বেশিরভাগ পেট্রোল। ফলে ওই নদীর পানির রং লাল হয়ে গেছে।

দূষণের পরিমাণ এতটাই ভয়াবহ যে স্যাটেলাইট ছবিতেও ধরা পড়ছে। গুগল ম্যাপ ও ইয়ান্ডেক্স স্যাটেলাইট ছবিতেও নদীর জলের লাল রং ফুটে উঠেছে। ঘটনার পর দুদিন কেটে গেলেও স্থানীয় প্রশাসন বুঝতে পারছে না যে ঠিক কী করা উচিত।

পুতিন ওই অঞ্চলে জরুরি অবস্থা জারি করেছেন। দ্রুত পদক্ষেপ নেওয়া হলে দূষণ কিছুটা রোধ করা যেত বলে মনে করছেন অনেকে। আর তাই স্থানীয় প্রশাসনের সমালোচনা করেছেন পুতিন।


এ জাতীয় আরো খবর
  • সর্বশেষ
  • পাঠক প্রিয়